আজ দেশের কোথাও কোথাও ভারী বর্ষণ হতে পারে

ইজাব টিভি ডেস্কঃ আজ বৃহস্পতিবার। দেশের কোথাও কোথাও অতি ভারী বর্ষণ হতে পারে। তবে চলমান বৃষ্টিপাতের প্রবণতা আগামীকাল ও পরশু হ্রাস পেতে পারে। আবহাওয়া অধিদফতরের পূর্বাভাসে এসব কথা বলা হয়েছে। এছাড়া আরো বলা হয়েছে দেশের কোথাও কোথাও মাঝারি ধরনের ভারী থেকে অতি ভারী বর্ষণ হতে পারে।

আজ সন্ধ্যা ৬টা পর্যন্ত আবহাওয়ার পূর্বাভাসে বলা হয়, খুলনা, বরিশাল, চট্টগ্রাম ও সিলেট বিভাগের বেশিরভাগ জায়গায় এবং রংপুর, রাজশাহী, ময়মনসিংহ ও ঢাকা বিভাগের অনেক জায়গায় অস্থায়ীভাবে দমকা হাওয়াসহ হালকা থেকে মাঝারি ধরনের বৃষ্টি অথবা বজ্রসহ বৃষ্টি হতে পারে। একই সাথে দেশের কোথাও কোথাও মাঝারি ধরনের ভারী থেকে অতি ভারী বর্ষণ হতে পারে। আগামীকাল ও পরশু বৃষ্টিপাতের প্রবণতা হ্রাস পেতে পারে। পরবর্তী পাঁচ দিনের আবহাওয়া অবস্থায় সামান্য পরিবর্তন আসতে পারে। বুধবার সন্ধ্যা ৬টা পর্যন্ত আগের ২৪ ঘণ্টায় সর্বোচ্চ বৃষ্টিপাত হয় সিলেটে ১৫৩ মিলিমিটার। এ সময়ে উল্লেখযোগ্য বৃষ্টিপাতের মধ্যে রয়েছে সন্দীপে ১০৯, খুলনায় ১০৪, সীতাকুণ্ডে ৮৩, নেত্রকোনায় ৬৬, কুতুবদিয়ায় ৬৩, চাঁদপুরে ৬০, ময়মনসিংহে ৫৫ ও কক্সবাজারে ৫৪ মিলিমিটার। ঢাকায় এ সময়ে বৃষ্টিপাতের পরিমাণ ছিল ছয় মিলিমিটার।

বুধবার দেশে সর্বোচ্চ তাপমাত্রা খুলনা ও চুয়াডাঙ্গায় ৩৪ দশমিক ৫ ডিগ্রি সেলসিয়াস করে রেকর্ড করা হয়েছে। সর্বনিম্ন তাপমাত্রা রেকর্ড করা হয়েছে টেকনাফে ২৪ দশমিক ৬ ডিগ্রি সেলসিয়াস। এদিন ঢাকায় সর্বোচ্চ ৩১ দশমিক ১ ও সর্বনিম্ন ২৭ দশমিক ৬ ডিগ্রি সেলসিয়াস তাপমাত্রা রেকর্ড করা হয়। আবহাওয়ার সিনপটিক অবস্থায় বলা হয়, মৌসুমি বায়ুর অক্ষের বাড়তি অংশ উত্তর প্রদেশ, বিহার, পশ্চিমবঙ্গ ও বাংলাদেশের মধ্যাঞ্চল হয়ে আসাম পর্যন্ত বিস্তৃত রয়েছে। এর একটি বাড়তি অংশ উত্তর বঙ্গোপসাগরে অবস্থান করছে। মৌসুমি বায়ু বাংলাদেশের ওপর সক্রিয় এবং উত্তর বঙ্গোপসাগরে মাঝারি অবস্থায় রয়েছে।